Breaking News
Home / বাংলা কবিতা (page 20)

বাংলা কবিতা

কত ভালবাসি – কামিনী রায়

জড়ায়ে মায়ের গলা শিশু কহে আসি,- “মা, তোমারে কত ভালোবাসি!” “কত ভালবাস ধন?” জননী শুধায়। “এ-ত।” বলি দুই হাত প্রসারি’ দেখায়। “তুমি মা আমারে ভালবাস কতখানি?” মা বলেন “মাপ তার আমি নাহি জানি।” “তবু কতখানি, বল।” “যতখানি ধরে তোমার মায়ের বুকে।” “নহে তার পরে?” “তার বাড়া ভালবাসা পারি না বাসিতে।” ...

Read More »

স্মৃতিচিহ্ন – কামিনী রায়

ওরা ভেবেছিল মনে আপনার নাম মনোহর হর্ম্মরূপে বিশাল অক্ষরে ইষ্টক প্রস্তরে রচি চিরদিন তরে রেখে যাবে ! মূঢ় ওরা, ব্যর্থ মনস্কাম। প্রস্তর খসিয়াছে ভূমে প্রস্তরের পরে, চারিদিকে ভগ্নস্তূপ, তাহাদের তলে লুপ্ত স্মৃতি ; শুষ্ক তৃণ কাল-নদী-জলে ভেসে যায় নামগুলি, কেবা রক্ষা করে! মানব হৃদয় ভুমি করি অধিকার, করেছে প্রতিষ্ঠা যারা ...

Read More »

স্মৃতিচিহ্ন – কামিনী রায়

ওরা ভেবেছিল মনে আপনার নাম মনোহর হর্ম্মরূপে বিশাল অক্ষরে ইষ্টক প্রস্তরে রচি চিরদিন তরে রেখে যাবে ! মূঢ় ওরা, ব্যর্থ মনস্কাম। প্রস্তর খসিয়াছে ভূমে প্রস্তরের পরে, চারিদিকে ভগ্নস্তূপ, তাহাদের তলে লুপ্ত স্মৃতি ; শুষ্ক তৃণ কাল-নদী-জলে ভেসে যায় নামগুলি, কেবা রক্ষা করে! মানব হৃদয় ভুমি করি অধিকার, করেছে প্রতিষ্ঠা যারা ...

Read More »

এরা যদি জানে – কামিনী রায়

এদেরও তো গড়েছেন নিজে ভগবান্ , নবরূপে দিয়েছেন চেতনা ও প্রাণ ; সুখে দুঃখে হাঁসে কাঁদে স্নেহে প্রেমে গৃহ বাঁধে বিধে শল্যসম হৃদে ঘৃণা অপমান, জীবন্ত মানুষ এরা মায়ের সন্তান।। এরা যদি আপনারে শেখে সম্মানিতে, এরা দেশ-ভক্ত রূপে জন্মভূমি-হিতে মরণে মানিবে ধর্ম বাক্য নহে — দিবে কর্ম ; আলস্য বিলাস ...

Read More »

চাহিবে না ফিরে? – কামিনী রায়

পথে দেখে ঘৃণাভরে          কত কেহ গেল সরে উপহাস করি’ কেহ যায় পায়ে ঠেলে ; কেহ বা নিকটে আসি,          বরষি সান্ত্বনারাশি ব্যথিতেরে ব্যথা দিয়ে যায় শেষে ফেলে । পতিত মানব তরে       নাহি কি গো এ সংসারে একটি ব্যথিত প্রাণ, দুটি অশ্রুধার ? পথে পড়ে, অসহায়              পদতলে দলে যায় দু’খানি স্নেহের কর ...

Read More »

অনল-প্রবাহ – ইসমাইল হোসেন সিরাজী

আর ঘুমিও না নয়ন মেলিয়া, ঊঠরে মোসলেম ঊঠরে জাগিয়া, আলস্য জড়তা পায়েতে ঠেলিয়া, পূত বিভু নাম স্মরণ করি। যুগল নয়ন করি উন্মীলন, কর চারিদিকে কর বিলোকন, অবসর পেয়ে দেখ শত্রুগণ, করেছে কীদৃশ অনিষ্ট সাধন, দেখো চাহিয়া অতীত স্মরি।

Read More »

জন্মভূমি – ইসমাইল হোসেন সিরাজী

হউক সে মহাজ্ঞানী মহা ধনবান, অসীম ক্ষমতা তার অতুল সম্মান, হউক বিভব তার সম সিন্ধু জল হউক প্রতিভা তার অক্ষুণ্ন উজ্জ্বল হউক তাহার বাস রম্য হর্ম্য মাঝে থাকুক সে মণিময় মহামূল্য সাজে হউক তাহার রূপ চন্দ্রের উপম হউক বীরেন্দ্র সেই যেন সে রোস্তম শত শত দাস তার সেবুক চরণ করুক ...

Read More »

ভারতের ভাগ্য-বিপ্লব – ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত

পূর্বকার দেশাচার কিছুমাত্র নাহি আর অনাচারে অবিরত রত। কোথা পূর্ব রীতি নীতি, অধর্মের প্রতি প্রীতি, শ্রুতি হয় শ্রুতিপথহত।। দেশের দারুণ দুখ দেখিয়া বিদরে বুক, চিন্তায় চঞ্চল হয় মন। লিখিতে লেখনী কাঁদে ম্লানমুখ মসীছাঁদে শোক-অশ্রু করে বরিষণ।। কি ছিল কি হ’ল, আহা, আর কি হইবে তাহা, ভারতের ভবভরা যশ। ঘুচিবে সকল ...

Read More »

তপসে মাছ – ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত

কষিত-কনককান্তি কমনীয় কায়। গালভরা গোঁফ-দাড়ি তপস্বীর প্রায়॥ মানুষের দৃশ্য নও বাস কর নীরে। মোহন মণির প্রভা ননীর শরীরে॥ পাখি নও কিন্তু ধর মনোহর পাখা। সমধুর মিষ্ট রস সব-অঙ্গে মাখা॥ একবার রসনায় যে পেয়েছে তার। আর কিছু মুখে নাহি ভাল লাগে তার॥ দৃশ্য মাত্র সর্বগাত্র প্রফুল্লিত হয়। সৌরভে আমোদ করে ত্রিভুবনময়॥ ...

Read More »

মাতৃভাষা – ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত

মায়ের কোলেতে শুয়ে ঊরুতে মস্তক থুয়ে খল খল সহাস্য বদন। অধরে অমৃত ক্ষরে আধ আধ মৃদু স্বরে আধ আধ বচনরচন।। কহিতে অন্তরে আশা মুখে নাহি কটু ভাষা ব্যাকুল হয়েছে কত তায়। মা-ম্মা-মা-মা-বা-ব্বা-বা-বা আবো আবো আবা আবা সমুদয় দেববাণী প্রায়।। ক্রমেতে ফুটিল মুখ উঠিল মনের সুখ একে একে দেখিলে সকল। মেসো, ...

Read More »
DMCA.com Protection Status